দুঃসংবাদ জানাতে যাচ্ছেন !

দুঃসংবাদ জানাতে যাচ্ছেন !

মানুষের জীবন বিভিন্ন চড়াই-উতরাইয়ে ভরা। কখন, কার জীবনে, কী দুর্ঘটনা ঘটে যায় তা আগে থেকে কেউ বলতে পারে না। অনেক খারাপ খবর থেকে যায় অগোচরে। সেই দুঃসংবাদটি হয়তো দিয়ে হয় অন্য কাউকে। কাউকে দুঃসংবাদ দিতে হবে – এই কঠিন পরিস্থিতির মুখোমুখি হতে হয় অনেক সময়। কী করবেন, কীভাবে বলবেন এ নিয়ে দ্বিধাদ্বন্দ্ব তো থাকেই। কীভাবে কাউকে জানাবেন কোনো দুঃসংবাদ, কেমন হওয়া উচিত আপনার আচরণ, জেনে নিন এমনই কিছু বিষয়।

stock footage“যা করবেন”

– দুঃসংবাদ কে জানাবেন, কাকে জানাবেন, কীভাবে জানাবেন – এই তিনটি জিনিস প্রথমেই ঠিক করে নিন।

– আপনি দুঃসংবাদ বহন করছেন, আপনার প্রথম কাজ হলো নিজের মনকে শান্ত রাখা।

– আগে থেকে ভেবে নিন কী বলবেন, তারপর খবর দিন।

– বাড়ির পরিস্থিতি বুঝে খবর দিন।

– বাড়ির মধ্যে একটু শক্ত মনের অধিকারী ব্যক্তিকেই সবার আগে ধীরে ধীরে বলুন।

– যদি ফোনে খবর দিতে হয় তাহলে গলার স্বর স্বাভাবিক ও সংযত রাখুন।

– কথা বেশি বাড়াবেন না। সংক্ষেপে, আবেগ সংযত রেখে খবর দিন।

– কঠিন মানসিকতার কাউকে আপনার সঙ্গে রাখুন যাতে তিনিও আপনার সাথে পরিস্থিতি সামাল দিতে পারে।

– আপনিও দুঃসংবাদে বিষণ্ন, তবুও আপনার নিজের অনুভূতি নিজের মধ্যেই রাখুন।

– আপনিও সমব্যথী, আপনার আচরণে তারা যাতে আশ্বস্ত হন সেদিকে অবশ্যই খেয়াল রাখবেন।

-কারো হার্টের সমস্যা থাকলে অবস্থা বুঝে খবর দেবেন।

– যেহেতু খবরটা আপনিই জানাচ্ছেন, তাই পরিস্থিতির গুরুত্ব সম্পর্কে আপনাকেই ওয়াকিবহাল থাকতে হবে।

– আড্ডা বা গল্প করতে করতে খারাপ খবর এলে হালকাভাবে বিষয়টা সবাইকে না জানিয়ে আগেই জানিয়ে দেবেন যে, একটা দুর্ঘটনা ঘটেছে এবং আপনি সে বিষয়ে কিছু জানাতে চান।

– খারাপ খবর মানেই মন খারাপ, বিষণ্নতা। বিষণ্নতাকে অতিক্রম করে তাত্‍ক্ষণিক করণীয় সম্পর্কে সজাগ থাকুন।

– যাদের দুঃসংবাদ দিচ্ছেন তাদের সাথে সম্পর্কের নৈকট্যের ভিত্তিতে আপনার আচরণ নির্ধারণ করুন।

– শুধুই আক্ষেপে সময় নষ্ট না করে পরপর কী কী করণীয় তা ঠিক করে ফেলুন। ক্ষেত্র বিশেষে তাদের ‘স্পেস’ দিন।

– অসুস্থ কাউকে কোনো খারাপ খবর জানাতে হলে আগে থেকে সাবধান হবেন। কীভাবে জানাবেন সে বিষয়ে একটু চিন্তাভাবনা করে রাখা ভালো।

যা করবেন না

– কোনো বয়স্ক মানুষকে হঠাত্‍ করে কোনো খারাপ খবর দেবেন না।

– ছোটরা খুবই সংবেদনশীল হয়, তাদের কোনো দুঃসংবাদ সরাসরি না দেয়াই ভালো।

– একটা দুঃসংবাদ দিতে গিয়ে অযথা ভণিতা করবেন না।

– কাউকে আচমকা কোনো খারাপ খবর শোনাবেন না।

– নিজে ভেঙে পড়বেন না।

– হালকা আবহাওয়ার ইমেজ তৈরি করে দুঃসংবাদ জানাতে যাবেন না।

– একসঙ্গে অনেক কিছু বলে জট পাকাবেন না।

– কোনো কিছুর তুলনা করে বা আগের কোনো খারাপ ঘটনার উদাহরণ দিয়ে কিছু না বলাই ভালো।

Share This Post

Post Comment