১০০ কোটি ই-মেইল অ্যাড্রেস হ্যাকড ?

১০০ কোটি ই-মেইল অ্যাড্রেস হ্যাকড ?

শতকোটি ই-মেইল অ্যাড্রেস হ্যাকের অপরাধে তিনজনকে অভিযুক্ত করেছে যুক্তরাষ্ট্রের বিচার বিভাগ। অভিযুক্তদের মধ্যে দুজন ভিয়েতনাম ও একজন কানাডার নাগরিক। এ তিনজনের চক্রটি শতকোটি ই-মেইল অ্যাড্রেস হ্যাক করে এগুলোয় স্প্যাম ছড়িয়েছে বলে জানা যায়। খবর টাইমস অব ইন্ডিয়া।

যুক্তরাষ্ট্রের বিচার বিভাগ বিবৃতিতে জানায়, এটি দেশটির ইতিহাসের সবচেয়ে বড় সাইবার হামলার মধ্যে অন্যতম। কোন কোন ই-মেইল কোম্পানি আক্রান্ত হয়েছে, সে বিষয়ে কোনো সুনির্দিষ্ট তথ্য জানানো হয়নি। তবে বিবৃতিতে ২০১১ সালে ই-মেইল বিপণন প্রতিষ্ঠান ইপসিলনের আক্রান্ত হওয়ার কথা বলা রয়েছে।

এ বিষয়ে সংশ্লিষ্টরা জানান, ২০১১ সালে ইপসিলন বড় পরিসরে আক্রান্ত হয়। সে হামলায় সিটিগ্রুপ ও জেপি মরগানের মতো ইপসিলনের অনেক গ্রাহক আক্রান্ত হন। তবে এ বিষয়ে ইপসিলনের পক্ষ থেকে কোনো মন্তব্য পাওয়া যায়নি। অভিযুক্ত ভিয়েতনামের দুই নাগরিক হচ্ছেন ২৮ বছর বয়সী ভিয়েট কুয়োক নুয়েন ও ২৫ বছর বয়সী গিয়াং হোয়াং ভু। এর মধ্যে নুয়েনের বিরুদ্ধে অন্তত আটটি ই-মেইল প্রতিষ্ঠানে হামলার কথা বলা হয়েছে। নুয়েন ২০০৯ থেকে ২০১২ সালের মধ্যে এ হামলা চালান।

হামলায় প্রাপ্ত ই-মেইল অ্যাড্রেসে স্প্যাম পাঠায় তারা। স্প্যামে অ্যাডোবি সিস্টেমসের নামে ভুয়া সফটওয়্যার পাঠানো হয়। আর তারা যে যে গ্রাহককে টার্গেট করেছিল, তাদের ই-মেইলেই এ স্প্যামগুলো পাঠানো হয়।

অভিযুক্ত আরেক ব্যক্তি হচ্ছেন ৩৩ বছর বয়সী কানাডার নাগরিক ডেভিড-ম্যানুয়েল সান্তোস ডি সিলভা। ২১ সেলসিয়াস নামের প্রতিষ্ঠানের স্বত্বাধিকারী সান্তোস অন্য দুজনের সঙ্গে মিলে অ্যাডোবির ভুয়া সফটওয়্যার বিক্রি করেছেন। আর এ থেকে সান্তোস ও নুয়েন প্রায় ২০ লাখ ডলার পান বলে জানা যায়। গত মাসেই ডি সিলভা ফ্লোরিডা বিমানবন্দরে গ্রেফতার হন। উল্লেখ্য, অ্যাডোবি রিডার ১০ নামের ভুয়া সফটওয়্যারটি তারা ৬৫ ডলার করে বিক্রি করে।

Share This Post

Post Comment