ঘরেই তৈরি করুন মধ্যপ্রাচ্যের মিষ্টি জাতীয় খাবার “তুলুম্বা”

ঘরেই তৈরি করুন মধ্যপ্রাচ্যের মিষ্টি জাতীয় খাবার “তুলুম্বা”

আজ আমরা নিয়ে এলাম এমনি একটি রেসিপি, যা আগে খুবই কম দেখেছেন আপনারা। মধ্যপ্রাচ্যের এই মিষ্টি জাতীয় খাবারটির নাম “তুলুম্বা”। নাম শুনে খুবই অদ্ভুত লাগছে? যতই অদ্ভুত লাগুক না কেন, এটা খেতে কিন্তু দারুণ।

(১) ডো এর জন্য লাগবে –
ময়দা -পৌনে ২ কাপ
পানি -দেড় কাপ
তরল দুধ – আধা কাপ
তেল অথবা গলানো মাখন -৪ টেবিল চামচ
লবণ – ১ চিমটি
ডিম -বড় সাইজের ৩ টি
ভিনেগার -২ চা চামচ
কর্ণ ফ্লাওয়ার – ১ টেবিল চামচ
ভ্যানিলা এসেন্স -১ চা চামচ

(২) সিরার জন্য লাগবে –
চিনি -৩ কাপ
পানি -২ কাপ
এলাচ গুঁড়ো – আধা চা চামচ
লেবুর রস – দেড় চা চামচ
এবং ভাজার জন্য পরিমাণ মত তেল

প্রণালীঃ
-প্রথমে একটা সস প্যানে চিনি ও পানি দিয়ে জ্বাল দিতে হবে। চিনি গলে যাওয়া পর্যন্ত নাড়তে হবে। চিনি গলে গেলে এবং সিরা ফুটে উঠলে ,মাঝারি আঁচে ৮-১০ মিনিট জ্বাল দিতে হবে।
-১০ মিনিট পর লেবুর রস ও এলাচ গুঁড়া দিয়ে চুলা থেকে নামিয়ে সিরাটা একদম ঠান্ডা করতে হবে। সিরা ঘন হবে। সিরা ঠান্ডা না হলে, তুলুম্বা সিরাতে দেয়ার পর নরম হয়ে যাবে।
-একটা হাড়িতে (১) নং এর পানি ,দুধ ,লবণ ,গলানো মাখন একসাথে নিয়ে চুলায় বসিয়ে ফুটাতে হবে। পানি ফুটে উঠলে ময়দা দিয়ে অনবরত নেড়ে রুটির সেদ্ধ কাই এর মত মসৃন ডো বানাতে হবে। যখন ময়দার মিশ্রনটা একসাথে দলা হয়ে আসবে তখন নামিয়ে নিতে হবে এবং একদম ঠান্ডা করতে হবে।
-ময়দার ডো একদম ঠান্ডা হয়ে গেলে একটা বড় বাটিতে নিয়ে এর সাথে একটা করে ডিম মেশাতে হবে এবং বড় কাঁটা চামচ অথবা কাঠের চামচ দিয়ে ভালো করে মেশাতে হবে। -এইভাবে সব গুলো ডিম দেয়া হলে,কর্ণ ফ্লাওয়ার দিয়ে ভালো করে মিশাতে হবে।
-ময়দার মিশ্রনটা মসৃন , নরম ও আঠালো হয়ে যাবে।
-তারপর এর সাথে ভিনেগার ও ভ্যানিলা দিয়ে ভালো করে মিশিয়ে নিতে হবে। (ময়দার ডো এর সাথে ডিম মিশানোর কাজটি ইলেকট্রিক বিটার দিয়ে করলে সহজ হয় ,বিটার এর সাথে যে ডো হুক থাকে সেটা দিয়ে করা যায়। আর যাদের স্ট্যান্ড মিক্সার আছে ,তারা স্ট্যান্ড মিক্সার এর প্যাডেল এটাচমেন্ট দিয়ে সহজেই করতে পারেন)
-তুলুম্বার ডোটা বানানো হয়ে গেলে ,একটা পাইপিং ব্যাগে একটু বড় সাইজ এর স্টার নজেল লাগিয়ে ,পাইপিং ব্যাগে তুলুম্বার আঠালো ও নরম ডো ভরে নিতে হবে।
-এখন ফ্রাই প্যান/কড়াই এ বেশি করে তেল দিয়ে গরম করতে হবে। তেল হালকা গরম হলে, পাইপিং ব্যাগটা ফ্রাই প্যান থেকে একটু উপরে ধরে চাপ দিন।
– তুলুম্বা যত টুকু লম্বা সাইজের করতে চান,চেপে ততটুকু ডো বের হলে কিচেন কাঁচি দিয়ে তুলুম্বা কাটুন। তুলুম্বা হালকা গরম তেলে পড়বে।
-এইভাবে পাইপিং ব্যাগে ভরা ডো চেপে চেপে ১ অথবা ২ ইঞ্চি লম্বা তুলুম্বা কেটে কেটে তেলে ছাড়ুন। মাঝারি আঁচে একটু সময় নিয়ে সোনালী করে ভাজুন।
-তুলুম্বা গুলো সোনালী করে ভেজে তেল ঝরিয়ে সরাসরি ঠান্ডা সিরায় ছেড়ে ,সিরা তে ২-৩ মিনিট ডুবিয়ে রাখুন।
-২-৩ মিনিট পর অতিরিক্ত সিরা ঝরিয়ে উঠিয়ে নিন। এইভাবে কয়েক বারে তুলুম্বা ভেজে সিরাতে দিন। তুলুম্বা প্লেট এ তুলে পরিবেশন করুন।

টিপসঃ
-এই তুলুম্বা খেতে অনেকটা আমাদের পাকন পিঠার মত। বাহিরে হালকা মচমচে এবং ভেতরে নরম। এই তুলুম্বা ১ দিন মচমচে থাকবে। তারপর নরম হয়ে যায় ,কিন্তু এরপরও খেতে ভালো লাগে।
-তুলুম্বা খুব গরম তেলে ছেড়ে ভাজলে ,উপর দিয়ে খুব তাড়াতাড়ি সোনালী হয়ে যাবে। কিন্তু ভেতরে কাঁচা থাকবে। তাই হালকা গরম তেলে দিয়ে ,একটু সময় নিয়ে ভাজতে হবে।
-যে কাপ দিয়ে ময়দা মাপবেন ,সেই কাপ দিয়েই পানি,দুধ,চিনি মেপে দিতে হবে। মেজারিং কাপ ব্যবহার করলে ভালো হয়।

Share This Post

Post Comment