ব্ল্যাক হেডস দূর করার উপায়

ব্ল্যাক হেডস দূর করার উপায়

ব্ল্যাক হেডস এক ধরনের ব্রন যার ওপর কোন পর্দা থাকেনা।যা বাতাসের সাথে অক্সিডায়েস হয়ে কালো বর্ণ ধারন করে।পরিষ্কার ত্বক সবার স্বপ্ন।কিন্তু ব্ল্যাক হেডসের কারনে যখন পুরো মুখের লাবণ্য হারিয়ে যায় তখন সেই স্বপ্নও কোথায় যেন হারিয়ে যায়। আপনার স্বপ্নের ত্বক ফিরে পাবার জন্য কয়েকটি সমাধান দেয়া হলো।

  • প্রতিদিন অন্তত দুই বার মুখ পরিষ্কার করতে হবে। এতে ত্বকের ময়লা দূর হয়, যে তেল পরিষ্কার লোমকূপের মুখ বন্ধ করে আছে, তা সরে যায়।
  • মটর ডাল বাটা , সয়াবিন গুঁড়ো অথবা চালের গুঁড়োর সাথে পানি মিশিয়ে নিন।একটু ম্যাসাজ করে  ১০ থেকে ১৫ মিনিট রেখে ধুয়ে ফেলুন।ত্বক উজ্জ্বল থাকবে, ব্ল্যাক হেডস থেকে মুক্তি লাভ হবে।
  • সপ্তাহে একবার ভালো করে স্ক্রাবার দিয়ে মুখ স্ক্রাব করতে হবে। ঘরোয়া উপায়ে ফেসওয়াশের সাথে চিনি মিশিয়ে ব্যবহার করলে স্ক্রাবারের মতো উপকার পাওয়া যায়।
  • অতিরিক্ত  মেক আপ ব্যবহার থেকে বিরত থাকতে হবে।আর ব্যবহার করলেও তা ভালো ভাবে পরিষ্কার করতে হবে।তা না হলে লোমকূপ বন্ধ হয়ে ব্ল্যাক হেডস হওয়ার সম্ভাবনা বেড়ে যায়।
  • শরীর আর মুখের জন্য আলাদা তোয়ালে ব্যবহার করতে হবে।
  • তৈলাক্ত খাবার পরিহার করতে হবে।
  • তরমুজের রস আর লেবুর রস ত্বক কে ঠান্ডা করার পাশাপাশি ত্বক কে নরম করে।অন্যদিকে লেবু প্রাকৃতিক পরিষ্কারক।অতিরিক্ত তৈলাক্ত ত্বকে প্রতিদিন সকালে এটা লাগান।কারন তৈলাক্ত ত্বকে ব্ল্যাক হেডস হওয়ার সম্ভাবনা বেশি থাকে।
  • “বেকিং সোডা এবং পানি” বা “লেবুর রস এবং চিনি” অথবা “লবন এবং টক দই” একসাথে মিশিয়ে পেস্ট বানিয়ে মুখে লাগালে উপকার পাওয়া যায়।
  • ডিমের সাদা অংশ ফেটিয়ে ব্ল্যাক হেডসের ওপরে ১৫ মিনিট লাগিয়ে রাখলে ব্ল্যাক হেডস থেকে মুক্তি পাওয়া যায়।
  • মুখে গরম ভাপ নেয়া যেতে পারে।একটা গামলায় ধোঁয়া ওঠা গরম পানি নিয়ে তার ওপর মুখ রাখতে হবে।খেয়াল রাখতে হবে গামলা থেকে  মুখের দূরত্ব কমপক্ষে যেন এক হাত থাকে।গরম ভাপ ব্ল্যাক হেডসের মুখ খুলতে সাহায্য করে আর খুব সহজে ব্ল্যাক হেডস পরিষ্কার করা যায়।
  • টুথব্রাশে কিছু টুথপেস্ট আর পানি নিয়ে ব্ল্যাক হেডস আক্রান্ত জায়গায় হালকা ভাবে ব্রাশ করতে হবে।খেয়াল রাখতে হবে চোখে যেন না লাগে।
  • ১ টেবিল চামচ লেবুর রস , ১ চিমটি বরিক পাউডার , ১ চিমটি চিনি ভালো ভাবে মিশিয়ে মিশ্রণ কিছু দিন এইভাবেই রেখে দিতে হবে।তারপর আক্রান্ত জায়গায় লাগাতে হবে।পার্থক্যটি নিজেই অনুভব করবেন।

Share This Post

Post Comment