কিভাবে ওঠাবেন চুলের রং

কিভাবে ওঠাবেন চুলের রং
চুলে রং করা যত সহজ, রং তোলা তত কঠিন। পছন্দমতো রং না হলে তুলে ফেলতে চান অনেকেই। কিন্তু নিয়ম না জানার কারণে বুঝতে পারেন না কী করবেন। বিস্তারিত জানাচ্ছেন আকাঙ্খা’স গ্ল্যামার ওয়ার্ল্ডের রূপ বিশেষজ্ঞ জুলিয়া আজাদ

এক

আধা কাপ ভিনেগারের সঙ্গে ১ কাপ পানি মেশান। চুলে রং করার ২৪ ঘণ্টার মধ্যে (যদি রং পছন্দ না হয়) পুরো চুলে মিশ্রণটি লাগিয়ে ১০ মিনিট অপেক্ষা করুন। তারপর শ্যাম্পু করে ফেলুন।

দুই

অ্যান্টি-ডানড্রাফ শ্যাম্পুর সঙ্গে বেকিং সোডা একসঙ্গে মিশিয়ে নিন। এখন হালকা গরম পানি দিয়ে চুল ভিজিয়ে মিশ্রণটি চুলে লাগিয়ে কিছুক্ষণ অপেক্ষা করুন। তারপর ঠাণ্ডা পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। ভালো ফলের জন্য এভাবে সপ্তাহে কয়েকবার করুন।

তিন

চুলে লেবুর রস লাগান। এবার শাওয়ার ক্যাপ দিয়ে মাথা ঢেকে এভাবে পাঁচ মিনিটের জন্য রাখুন। তারপর কুসুম কুসুম গরম পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন।

চার

যদি কখনো চুলে লাগানো কালো রংটা অস্বাভাবিক কালো হয়ে যায়, এ ক্ষেত্রে পাঁচ ফোঁটা গুঁড়া সাবান ব্যবহার করা শ্যাম্পুর সঙ্গে মিশিয়ে নিন। এরপর চুলে লাগান। এভাবে সপ্তাহে তিনবার করুন। চুলে তেল দিয়ে তারপর এ পদ্ধতি অনুসরণ করবেন।

পাঁচ

অ্যান্টি-ডানড্রাফ শ্যাম্পু অনেক বেশি শক্তিশালী, কার্যকর। তাই দুদিন পর পর এই শ্যাম্পু দিয়ে চুল ধুয়ে ফেলুন।

ছয়

হট অয়েল ট্রিটমেন্ট চুলের রং তোলায় সাহায্য করে। এক কাপের চার ভাগের এক ভাগ অলিভ অয়েল আধা কাপ ফুটন্ত পানির সঙ্গে ব্লেন্ডারে ব্লেন্ড করে নিন, যতক্ষণ পর্যন্ত পাতলা মিশ্রণে পরিণত হয়। তারপর চুলের গোড়ায় ভালোভাবে লাগাবেন। এক ঘণ্টা অপেক্ষা করে শ্যাম্পু করে ফেলুন। সপ্তাহে একবার করবেন।

এ ছাড়া হেয়ার কালার রিমুভার এবং কালার জিপ চুলের রং তোলার জনপ্রিয় প্রসাধন। ব্যবহারের আগে প্যাকেটের নির্দেশনাবলি মেনে ব্যবহার করতে পারেন।

টিপস* টাইড ডিটারজেন্ট চুলের কালার তোলার জন্য ভালো

* প্রতিবার শ্যাম্পু করার পর অবশ্যই কন্ডিশনার লাগাবেন

* তাৎক্ষণিকভাবে রং চলে যাবে, এটা আশা করবেন না। কিছুটা সময় লাগবে এবং কয়েকবার করতে হবে।

Share This Post

Post Comment